OnePlus Nord 2T 30,000 এর মধ্যে কেন সেরা ফোন?

OnePlus তাদের Nord সিরিজের ফোন লঞ্চ করার সময় ইউজার দের অনেক এক্সপেক্টেশন ছিল যে কোম্পানি তাদের ফ্লাগশিপ ফোনের মত এই mid range ফোনেও একই পরিমাণ specs কিংবা ফিচার প্রদান করবে। কিন্তু কোনো না কোনো ভাবে OnePlus তাদের ইউজারদের হতাশ করেছে। এই কোম্পানি একের পর এক ফোন লঞ্চ করেই যাচ্ছিল তাদের ফোনগুলো ঠিক মত অপটিমাইজ না করে। এর পরেই তারা তাদের Nord সিরিজের ভিতরে একটি T সিরিজ নামে দুর্দান্ত ও পাওয়ারফুল specifications ও ফিচার নিয়ে হাজির হলো। খুব দ্রুতই এই T সিরিজ famous হতে শুরু করলো। মানুষ পছন্দ করতে লাগলো তাই তারা তাদের T সিরিজে নতুন ফোন অ্যাড করার পরিকল্পনা করলো।

এর পর OnePlus তাদের ইউজারদের feedback শুনে একটি OnePlus Nord নামে mid range ক্যাটাগরির ফোন লঞ্চ করলো, যে ফোনটি মার্কেটে রাজত্ব করতে শুরু করলো দুর্দান্ত ফিচার ও aggressive দামে লঞ্চ হবার কারণে। এই ফোনটি 30 হাজারের মধ্যে আগে থাকতেই এক পাওয়ারফুল স্মার্টফোন হিসাবে পরিচয় পেলো। কিন্তু এবার কোম্পানি একই ক্যাটাগরিতে 30 হাজারের নিচে OnePlus Nord 2T নামে আরো এক ফোন লঞ্চ করলো।

Read More: ফুটবল প্লেয়ার Neymar Jr. এখন থেকে PUBG Ambassador

এই OnePlus Nord 2T ফোনে শুধু তারা পাওয়ারফুল specs কিংবা ফিচার দিয়েছে এমনটি নয় বরং তারা খুব সস্তায় এটি লঞ্চ করেছে যাতে করে প্রায় সবাই এই ফোনটি আফোর্ড করতে পারে। OnePlus Nord 2 ফোনের 8GB RAM ভ্যারিয়েন্ট দাম ছিল 29,999 টাকা ওপর দিকে OnePlus Nord 2T ফোনের প্রাইস রাখা হয়েছে 8GB ভ্যারিয়েন্ট 28,999 টাকা।

2022 সালের 30 হাজারের মধ্যে এই ফোনটি কেনো সেরা সেটা আমরা এখন আলোচনা করবো।

এক নতুন চিপসেট : T সিরিজের নাম শুনেই আমরা বুঝতে পারছি যে এই ফোনে OnePlus Nord 2 এর থেকে কিছু না কিছু পরিবর্তন হবে। সেই কারণে OnePlus Nord 2T স্মার্টফোনে আছে মিডিয়াটেকের তরফ থেকে আসা নতুন MediaTek Dimensity 1300 যেটি MediaTek Dimensity 1200 এর successor হিসাবে এসেছে। এই প্রসেসর শুধুমাত্র আপনার day to day লাইফের কাজ করতে সক্ষম এমন নয় বরং এটি High end যেকোনো কাজ খুব স্মুথ ভাবে করে ফেলতে পারবে।

Read More: তাহলে এটা কি BGMI ও Free Fire এর জন্য 25000 এর মধ্যে সেরা Phone?

এই ডিভাইসে 5G support দেওয়া আছে যখনই 5G চালু হবে তখনই এটি 5G connectivity তে চলতে শুরু করবে। এছাড়াও এই ফোনে HyperEngine 5.0 আছে যেটি এই ফোনের গ্রাফিক পারফরম্যান্স ও অ্যাপ স্পীড কে অনেকটা বাড়িয়ে দেই। এছাড়াও এই ডিভাইসে 12GB LPDDR4X RAM সাপোর্ট এবং UFS 3.1 স্টোরেজ সাপোর্ট দেওয়া হয়েছে যা এই ফোনকে খুবই ফাস্ট করে তোলে।

FAST CHARGING: এটি mid-range ডিভাইস হলেও এখানে ফ্লাগশিপ লেভেলের 80W supervoc charging টেকনোলজি দেওয়া হয়েছে। এর আগে OnePlus তাদের ফ্লাগশিপ ফোন OnePlus 10Pro স্মার্টফোনে এই চার্জিং স্পীড দিয়েছিল কিন্তু এবার তারা OnePlus Nord 2T স্মার্টফোনে 4500 mAh battery ক্যাপাসিটির সাথে 80W ফাস্ট চার্জিং সাপোর্টও দিয়েছে। Nord 2T মাত্র 30 মিনিটের মধ্যে 100% চার্জ করতে সক্ষম।

যদি আপনার খুবই তাড়া থাকে তাহলে এই ফোনটিকে মাত্র 15 মিনিট চার্জে বসান এর পেয়ে যান 50% চার্জ। শুনতে অবাক লাগলেও এটাই সত্যি। এছাড়াও এই ফোনটি যাতে বেশি গরম না হয় তার জন্য এই ফোনে নয়টি Temperature sensor ব্যাবহার করা হয়েছে।

Camera Specifications: OnePlus Nord 2T স্মার্টফোনে তিনটি ক্যামেরা কম্ব ব্যাবহার হয়েছে। একটি 50MP OIS এর সাথে SONY IMX766 মেন ক্যামেরা সেন্সর যা আগে OnePlus 10R প্রিমিয়াম ফোনে ব্যাবহার করা হয়েছিল। 8 MP এর একটি Ultra-wide ক্যামেরা সেন্সর ও 2MP এর আরেকটি monochrome ক্যামেরা সেন্সর ব্যাবহার করা হয়েছে। আর সামনে 32MP সেলফি ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে।

এই ফোনের ক্যামেরাতে Portait সেন্সর, Panorama সেন্সর, AI, HDR, Night mode, ডুয়েল ভিউ mode এর মত সমস্ত ফিচার দেওয়া আছে। আর সামনের ক্যামেরা শার্প ও ডিটেইল ফটো ক্যাপচার করতে সক্ষম।

Oxygen OS: OnePlus এর স্মার্টফোনে সবথেকে highlights ফিচার হল তাদের Oxygen OS সিস্টেম। আর এই নতুন Oxygen OS 12.1 আপডেটে নতুন এক clean experience উপহার দিয়ে থাকে। Oxygen OS হল অন্যান্য OS এর মধ্যে সবথেকে clean ও ভালো OS যা ইউজারদের experience কে অন্য পর্যায়ে নিয়ে যায়।

সবশেষে, সবশেষে বলতে গেলে হ্যাঁ এই OnePlus Nord 2T ফোনটি 30,000 টাকার মধ্যে সেরা ফোন।

Akash

I am Akash. On my website we post various news related to technology every day. And this site is made for tech review, new launch, latest news lottery news etc.

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।